Home › Uncategorized › ডোমেইন হোস্টিং নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা। কোনটি আপনার জন্য উপযোগী সাথে কিছু টিপস ও রিয়েল এক্সপেরিয়েন্স

9 months ago (November 22, 2017)

ডোমেইন হোস্টিং নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা। কোনটি আপনার জন্য উপযোগী সাথে কিছু টিপস ও রিয়েল এক্সপেরিয়েন্স

Category: Uncategorized Tags: by

ডোমেইন হোস্টিং নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা। কোনটি আপনার জন্য উপযোগী সাথে কিছু টিপস ও রিয়েল এক্সপেরিয়েন্স।

হাই এবরিওয়ান, দিস ইজ  রবিউল। আজ আমি যে টপিকটি নিয়ে আলোচনা করব সেটি হল ডোমেইন এবং হোস্টিং।

ডোমেইন:

সহজ কথায় বলতে ডোমেইন হল একটি ওয়েবসাইটের নাম যেমন www.google.com, www.facebook.com, www.youtube.com, trickbd.com, etc. এখানে www হল World wide web যেটির মাধ্যমে নেটওয়ার্কিং সিস্টেম নিয়ন্ত্রিত হয় যা World wide web consortium (W3C) এই কোম্পানিটি নিয়ন্ত্রন করে তবে এখন আর www লিখতে হয়না ব্রাওজার অটোমেটিক ধরে নেয়। google, facebook, youtube, trickbd এগোলো হল ডোমেইন নেইম আর .com হল এক্সটেনশন .net .info .org .mobi .biz .tech .website .co .cc .st  অনেক এক্সটেনশন আছে। ডোমেইন নিয়ন্ত্রিত হয় ICANN নামক কোম্পানি দ্বারা, তারা ডোমেইন  নিয়ন্ত্রন, গবেষনা, সংস্করন করে । ডোমেইন এর কার্যকলাপ DNS (Domain name server অনেকে Domain name service ও বলে) এর মাধ্যমে।

হোর্স্টিং:

শুধু ডোমেইন নেইম দিয়ে ওয়েব সাইট হয়না ডোমেইন বোঝাতে, ধরুন আপনি একটি বাড়ি করবেন তার জন্য আপনাকে প্রথমে জমি কিনতে হবে জমি কিনার জন্য আপনাকে দলিল করে রেজিষ্ট্রি করতে হবে তারপর সেখানে ্ইট, বালু, রড, সিমেন্ট ইত্যাদি দিয়ে বাড়ি বানাতে হবে। ডোমেইনটা হল শুধু আপনার সেই দলিল বা রেজিষ্ট্রি বা এড্রেস বা আপনার মালিকানা যা আপনি ডোমেইন প্রোভাইডার কোম্পানি থেকে কিনবেন আর হোস্টিং হল আপনার বাড়ি বানানোর উপকরন বা সরঞ্জাম (ইট, বালু, সিমেন্ট ইত্যাদি), ওয়েবসাইট বানাতে হলে আপনাকে অবশ্যই সরঞ্জাম বা উপকরন লাগবে তা  না হলে শুধু দলিল বা নাম দিয়ে কিছু হবেনা। ডোমেইনের ত আর ইট বালু, সিমেন্ট এগুলো বুঝেনা সে বুঝে কন্ট্রোল প্যানেল বা সি প্যানেল যেখানে ডিস্ক স্পেস (যেখানে আপনার সাইটের কন্টেন্ট যেমন ইমেজ, আরটিকেল, অডিও, ভিডিও ফাইলগুলো থাকবে), মাইএসকিউএল, ডাটাবেজ, ব্যান্ডউইথ ইত্যাদি ওয়েব সাইটের জন্য যা যা দরকার সবই থাকবে এই সবগুলো একটা কন্টোল প্যানেল বা সি প্যানেল এ থাকবে। অর্থ াৎ আপনার ডোমেইন টাকে কোন একটা সিপ্যানেল এ হোস্ট করতে হবে আর এটাকেই হোস্টিং বলে। আশা করি কিছুটা হলেও বুঝতে পেরেছেন।

হোস্টিং এর মধ্যে এখনও সবার উপরে আছে Hostgator তবে আরও অনেক ভাল ভাল কোম্পানী আছে যেমন iPage, Namecheap, 1and1 etc. তবে এগুলোর দাম অনেক বেশি।

ডোমেইন হোস্টিং কি এক কোম্পানী থেকে কিনতে হবে? উত্তর না আপনি চাইলে এক কোম্পানী থেকেও কিনতে পারবেন অথবা আলাদাভাবেও নিতে পারনে এটা আপনার ইচ্ছা এক কোম্পানী থেকে কিনলে তারা নিজেরাই নেইমসার্ভার সেটিং করে দিবে আর আলাদা ভাবে নিলে আপনাকে নিজে নেইমসার্ভার এড করে নিতে হবে।

হোস্টিং এর মধ্য কিছু ভাগ আছে আপনার ওয়েবসাইটের কন্টেন্ট বা ভিজিটর বা চাহিদার উপর ভিত্তি করে  হোস্টিং নিতে পারেন। শেয়ারড হোস্টিং, রিসেলার হোস্টিং, ডেডিকেটেড হোস্টিং, ভিপিএস ইত্যাদি হোস্টিং আছে।

কিভাবে ডোমেইন হোস্টিং কিনব ?

ডোমেইন হোস্টিং সেল করার অনেক বড় বড় কোম্পানি আছে বিশ্বে বাংলাদেশেও আছে অনেক ডোমেইন হোস্টিং প্রোভাইডার । আন্তর্জাতিক কোম্পানিগুলোর মধ্য Goddady, enom, hostgator, iPage, Register,  name, namecheap, nameselo, 1and1 ইত্যাদি উলেখযোগ্য  সবচেয়ে বড় কোম্পানি হল Goddady বিশ্বের যত ডোমেইন কোম্পানি আছে তাদের মধ্য সবচেয়ে বেশি ডোমেইন সেল হয়েছে তাদের। তবে Goddady এর নামে অনেক অভিযোগও রয়েছে তারা বেশি টাকার বিনিময়ে ডোমেইন নিয়ে দুই নাম্বারি করেছে এমন অনেক রেকর্ডও আছে। বাংলাদেশে অনেকগুলো প্রাভাইডার আছে তবে তারা রিসেইলার তথা বিদেশী কোম্পানী থেকে পাইকারী দামে দিয়ে আমাদের কাছে সেল করে।

ইন্টারন্যাশনাল কোম্পানী থেকে ডোমেইন কিনতে হলে আপনাকে অবশ্যই ইন্টারন্যাশনাল পেমেন্ট মেথড্ মানে পেপাল, মাষ্টারকার্ড  বা ভিসা কার্ড  থাকতে হবে যেগুলো বাংলাদেশে এখনো এভায়লেবল না যদিও পেওনার (একটিভ করতে গেলেই ১০০ ডলার মানে ৮০০০ টাকা প্রায় লাগবে), পেইজা (১৬০০ টাকা কার্ড ফি ২মাস লাগবে আসতে) , কোন কোন ব্যাংক ইন্টারন্যাশনাল মাষ্টারকার্ড দিয়ে থাকে তবে সেটা ব্যয়বহুল। বাংলাদেশের প্রাভাইডারদের কাছ থেকে নিলে আপনি বিকাশের মাধ্যমে বা অনেক কোম্পানিতে নিজে গিয়েও হ্যান্ড ক্যাশ করে ডোমেইন হোস্টিং কিনতে পারবেন।

কোনটি আমার জন্য ভাল হবে?

যদি আপনি প্রাথমিক অবস্থায় প্রেকটিস করার জন্য  নিতে চান তাহলে একটা ডোমেইনের সাথে ৫১২ এমবি ডিস্ক স্পেস মানে ফাইল মেনেজার, ৫ জিবি ব্যান্ডউইথ  হলেই যথেষ্ট প্রেকটিস করার জন্য। যদি ব্লগ এর জন্য নিতে চান তাহলে প্রাথমিক অবস্থায় ১ জিবি ডিস্ক স্পেস ১০ জিবি ব্যান্ডউইথ দিয়ে স্টার্ট  করতে পারেন বর্তমানে সব কোম্পানিই আপগ্রেড করার সুবিধা দিয়ে থাকে যখন ভিজিটর বারবে বা ডিস্ক স্পেস বেশি প্রয়োজন হবে তখন আপগ্রেড করে নিতে পারেন আর যদি ই-কমার্স সাইট বানাতে চান তাহলে ভিপিএস হোস্টিং নিতে হবে ।

বিদেশী কোম্পানী ভাল হবে নাকি দেশী?

যদি শুধু প্রেকটিস করার জন্য নিতে চান তাহলে বিডি থেকে নিতে পারেন। ভেবে দেখেন একটা ওয়েবসাইট কিন্তু একদিনের জন্য না যদি আপনি দীর্ঘ সময়ের জন্য ব্লগ বা ই-কমার্স সাইট বানিয়ে গুগল এডসেন্স নিয়ে কাজ করতে চান তাহলে অবশ্যই ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করতে হবে আপনি যে ডোমেইন হোস্টিং নিবেন সেটার মেয়াদ শেষ হবার পর রিনিউ করতে হবে যদি কোন কারনে রিনিউ করতে না পারেন তাহলে আপনার স্বাদের ওয়েবসাইটটাই চলে যাবে তাই ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করতে হবে যদিও ডোমেইন হোস্টিং ট্রান্সফার করার পদ্ধতি আছে তবে রিনিউ করার বিষয়টা মাথায় রাখতে হবে। বাংলাদেশে পূর্বে অনেক কোম্পানী ছিল তারা বিদেশী কোম্পানী থেকে রিসেলার মানে পাইকারী দামে নিয়ে ডোমেইন হোস্টিং সেল করত কিন্তু বছর দুয়েক পার হতেই তাদের ওয়েবসাইট সহ বিদায় নিয়ে নিল যদি এরকম হয় তাহলেত সবই যাবে তবে অনেকগুলো ভালো কোম্পানী আছে যারা ৮-১০ বছর যাবত সফলতার সাথে ডোমেইন হোস্টিং প্রোভাইড করছে তাদের কাছ থেকে নিতে পারেন। এখন আপিনিই বিবেচনা করেন আপনি কোথা থেকে নিবেন তবে আমি রিকমেন্ড করব যদি আপনার ইন্টারন্যাশনাল পেমেন্ট মেথড থাকে তাহলে বিদেশী কোম্পানী থেকে নিতে পারেন কারন তারা আপনার সাথে কোন দুই নাম্বারি করবেনা, আপনার সাইট ডাউন থাকবেনা এবং আপনার একাউন্ট ওয়েবসাইট সিকিউর থাকবে। বিডি থেকে নিলে ডাউন থাকার সম্ভাবনা থাকবে।

টিপস:

আমার এক্সপেরিয়েন্স থেকে বলতেসি যদি কমদামে বিদেশী কোম্পানী থেকে নিতে চান তাহলে Goddady থেকে ডোমেইন এবং Namecheap থেকে হোস্টিং নিতে পারেন। Goddady থেকে প্রথম বছর $1.17 দিয়ে ডোমেইন নিতে পারবেন (শর্ত হল অবশ্যই মাষ্টার কার্ড দিয়ে কিনতে হবে এবং কার্ড এর তথ্য তাদের সার্ভারে এড থাকবে যা রিমুভ করা যাবেনা) পরবর্তি বছর থেকে ১৫ ডলার করে রাখবে আর Namecheap এর হোস্টিং প্রথম বছর মাত্র $9.98 দিয়ে নিতে পারবেন পরবর্তি বছর থেকে 34 ডলারের মত রিনিউয়াল চার্জ প্রযোজ্য হবে।

এখানে একটা টিপস হল প্রথম বছরের শেষ দিকে Goddady থেকে ডোমেইনটাকে Namecheap এ ট্রান্সফার করলে 10 ডলার এর মত কাটবে এবং সাথে সাথে মেয়াদ ১ বছর বৃদ্ধি পাবে আর হোস্টিংটাকে রিনিউ না করে নতুন আরেকটা একাউন্টে আবার $9.98 দিয়ে হোস্টিং কিনে এই একাউন্টে ডোমেইন এর নেইমসার্ভার সেভ করে দিবেন। তবে অবশ্যই আপনার সাইটটিকে সম্পূর্ণ ব্যাকআপ নিয়ে রাখতে হবে নতুন হোস্টিং এ ট্রান্সফারকৃত ডোমেইন এড করার পর সাথে সাথে সম্পূর্ণ সাইটটাকে ইমপোর্ট করে দিবেন। সম্পূর্ণ কাজটা করতে বেশী সময় লাগবেনা আপনার সাইটে যে টাইমে ভিজিটর কম থাকবে তখন ট্রান্সফার এর কাজটা করে নিবেন (একটু বেশী বলে ফেললাম)।

আর হ্যাঁ কিভাবে  ফ্রিতে মাষ্টারকার্ড নিয়ে সেখানে ডলার এড করে তারপর Goddady ডোমেইন কিনবেন এই রকম একটা আমার ভিডিও ইউটিউবে আছে  এখানে মাষ্টারকার্ড নেয়া সহ একটা Goddady ডোমেইন সরাসরি কিনে দেখিয়েছি ২২ মিনিটের মত ভিডিও মনে হয় যদি কারও লাগে তাহলে Knock দিয়েন লিংক দিব।

ভাবছি ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর উপরে কিছু প্রফেশনাল মানের পোষ্ট করব প্রথমিক ট্রিকবিডি (সিম্পল) থিম টাকে ফুল রেস্পনসিভ (মানে কোন মোবাইল ভার্সন বা ডেস্কটপ ভার্সন থাকবেনা যখন যে মনিটরে থাকবে তখন সেই অনুযায়ী অটোমেটিক ভার্সন চেন্জ হবে) টেমপ্লেটে ডিজাইন করব তারপর কোডিং করে ওয়ার্ডপ্রেসে কনভার্ট করব। অলরেডি সেইম কাজটা একবার করেছি রেকর্ড করি নাই তবে এখানে ডেমো দেয়া যাবেনা।

যদি আপনাদের কারো আগ্রহ থাকে তাহলে শুরু করব আরকি আর হ্যা দুইটা বড় সড় ভিডিও ও বানাব একটা ট্রিকবিডি এটুজেট ডিজাইন এবং একটা এটুজেট ডেভেলপ।

পোষ্টটা মনে হয় সাজিয়ে করতে পারিনাই, অনেক কিছু বাদ পরেছে যদি কোন ভুল ত্রুটি থাকে সুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন।

About 2

author

 

2 responses to “ডোমেইন হোস্টিং নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা। কোনটি আপনার জন্য উপযোগী সাথে কিছু টিপস ও রিয়েল এক্সপেরিয়েন্স”

Leave a Reply

You must be Logged in to post comment.